🔥জাকির নায়েক বিতর্কের জবাব 🌟আত্ম উন্নয়ন : ধর্মের প্রকৃত সৌন্দর্য 🙏 ধর্ম প্রচারে সাধারণ সৌজন্য |

34 Replies to “🔥জাকির নায়েক বিতর্কের জবাব 🌟আত্ম উন্নয়ন : ধর্মের প্রকৃত সৌন্দর্য 🙏 ধর্ম প্রচারে সাধারণ সৌজন্য |”

  1. জাকির নায়েক সম্পর্কিত:- (আশা করি জবাব দিবেন)
    ধর্মীয় উস্কানির সুনির্দিষ্টঅভিযোগ আছে,অভিযোগ গুলো বলবেন কি কি?
    উনি বিক্ষিপ্তভাবে স্লোক বলেন,শ্রী শ্রী রবি শংকরের সাথে যখন উনার প্রোগ্রাম হল ঐ সময় রবি শংকর এই অভিযোগটা করলেন না,আর আপনি জেনে গেলেন উনি বিক্ষিপ্তভাবে স্লোক বলেন !!
    হলি আর্টিজানের হামলাকারীরা কি বললো সেটার কথা বললেন,কেউ যদি আপনার বক্তব্য ভূলভাবে বুঝে সেটার দায়ভার কার ?
    আর মূর্তিপূজা হারাম সেটা যদি কেউ ঐ ধর্মের রেফারেন্স দিয়ে বলে তাতে ঐ ধর্ম অবমাননা হয় না,কেননা সেটা করা হয়েছে সত্যটা তুলে ধরার জন্য,অবমাননা করার জন্য নয়।
    আপনার থিওরী ফলো করলে দ্বীনের দাওয়াত বন্ধ করে দিতে হবে,কারন দাওয়াতের কাজ দেওয়ার সময় যুক্তি &রেফারেন্স দিতেই হবে।
    আপনি কে কি বললো সেগুলোর রেফারেন্স দেওয়ার আগে জেনে নিবেন অভিযোগ গুলো যুক্তি নির্ভর কি না? না কি ঐ রকম যুক্তির ভিত্তিতে অভিযোগ গুলো – গরু ঘাস খায় আর মানুষ গরুকে খায় সুতরাং মানুষ ঘাস খায়।
    আর দয়াকরে যে মার্কেটিং কোম্পানীতে দীর্ঘ দিন কাজ করেছেন,ঐ কোম্পানীর নামটা বলবেন ।তাতে অন্তত কৃতজ্ঞতা জানানো হবে,তবে যদি মনে করেন সেটাতে কাজ করা ভূল ছিল তাহলে নাম বলার প্রয়োজন নাই।

  2. খুবই অসাধারণ আলোচনা করেছে আপনাকে অনেক ধন্যবাদ ভাই

  3. জাকির নায়েক সম্পর্কিত:- (আশা করি জবাব দিবেন)
    পোপ ফাদারের রেফারেন্স উনি আমদানী করেছেন,ইসলাম সম্পর্কিত বিধর্মীদের প্রশ্ন গুলোর উত্তর উনি পোপ ফাদারের রেফারেন্স থেকে নিয়ে এসেছেন?দু একটা উদাহরণ দিবেন।
    উনি যে রেফারেন্স দেন সে গুলো দেখে দেখে দেন ,অডিয়েন্স দেখতে পায় না,তো আপনি দেখলেন কিভাবে?আপনি কি পারবেন প্রমানসহ উত্তরটা দিতে।মনে যা আসে সেটা বলার আগে,আমাদের সবার দেখা উচিত সেগুলোর কোন ভিত্তি আছে কি না।

  4. যদিও আমি নিজেও জাকির নায়েক কে পছন্দ করি সেটা ভিন্ন বিষয় কিন্তু আমার বিশ্বাস একজন মুসলমান হিসেবে আপনার এই সাত চল্লিশ মিনিটের পর্ব টি অন্তত আমাদের সবার দেখা উচিত, বিশেষ করে শেষের দশ/বার মিনিটের কথা গুলি অসাধারণ থেকেও অসাধারণ ছিল ।অনেক ধন্যবাদ সজল ভাই 👌😍💙

  5. সজল ভাই, আমি সিলেটের সুনামগঞ্জের।
    আপনার ট্রেনিং করার পর থেকে ভক্ত ছিলাম এখনো আছি।
    এর আগের পর্বগুলো দেখেছি অনেকবার।
    আর, এই ভিডিওটাও দেখলাম অতি মনযোগ দিয়ে।
    খুব ভাল ও যুক্তিসঙ্গত আলোচনা উপহার দেয়ার জন্য আপনাকে অনেক অনেক ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

  6. যিনি বা যাহারা আপনার বক্তব্যের বিরোধিতা করেছেন তাদের প্রতি আমার শ্রদ্ধা ও ভালোবাসা। না হলে আপনার এই গুরুত্বপূর্ণ লেসনটি পেতাম না।

  7. সজল ভাই

    মানুষ তার স্বাভাবিক জ্ঞান চিন্তা করে। আর মানুষের জ্ঞান হলো সসীম। আল্লাহ তায়ালার জ্ঞান [ অহির জ্ঞান বা আল কোরান ] অসিম।সসীম জ্ঞান দিয়ে অসিম জ্ঞানের কী বা চিন্তা করবেন। ধর্মীয় জ্ঞানার্জন করে গেলে অহির জ্ঞান থাকতে হবে ।আর অহির জ্ঞান হল আল কোরান। মানুষ শুধু স্বভাবিক জ্ঞান দিয়ে জ্ঞান দিয়ে চিন্তা করলে সে নাস্তিক হবে আর স্বাভাবিক জ্ঞানের সাথে যদি অহির জ্ঞান বা কোরানের জ্ঞান সংযুক্ত হয় তাহলে সে ধর্মকে বুঝতে পারবে বা স্রষ্টার সৃষ্টিকে উপলব্দি করতে পারবে। কোরানকে শুধু মুখস্থ করতে নাযিল হয়নি। কোরান কেন নাযিল হয়েছে ,এটা বুঝতে হলে কোরানিক জ্ঞানার্জন বিশদ প্রয়োজন।এখানেই স্বাভাবিক জ্ঞান আর কোরানিক জ্ঞান বা অহির জ্ঞানের মধ্যে তফাৎ।

  8. এই পার্টটি শেষ পর্যন্ত দেখার অনুরোধ রহিল।
    অসাধারণ আলোচনা।

  9. আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহ
    জি ভাইজান আপনি ঠিকই বলেছেন আপনার কথাগুলোর অনেক ওয়েট আছে বলে আমি মনে করি

  10. আপনার মধ্যে একটা মুসলমানের চিহ্ন দেখান? এভাবে সুন্দর সুন্দর কথা বলে মানুষ কে বোকা বানান কেন?জাকির নায়েক আর আরিফ আজাদ তো মানুষের বাডি বাডি গিয়ে ইসলামের দাওয়াত দেয় না ।তারা মুসলিম বা অন্য ধর্মের লোকজনের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর যুক্তি সহকারে রেফারেন্স সহ বুঝিয়ে দেন। তাদের যুক্তি নিয়ে আপনার সমস্যা থাকলে সেখানে গিয়ে জানান।
    বিদায় হজের ভাষন মনে আছে নিশ্চয়ই সেখানে নবী করিম( সাঃ)বলেছেন সত্যের বাণী সবার কাছে পৌছে দিতে । এখন আপনি যদি সত্যের বাণী সবার কাছে পৌঁছাতে চান আপনি অনেক প্রশ্নের সম্মুখীন হবেন এবং ওগুলোর জবাব দিতে আপনার অনেকে যুক্তি রেফারেন্স এর দরকার ।তো সেগুলো তো আমাদের জানতে হবে ।
    জাকির নায়েক আর আরিফ আজাদের মত লোক ঠিক সেই কাজটিই করেছেন।তারা অনেক কিছুই বলেন যা আমরা সাধারন মানুষ আগে জানতাম না।
    নিশ্চয়ই তাদের জনপ্রিয়তা দেখে আপনার গায়ে জালা ধরে।
    ভাই যুগে যুগে অনেক জাকির নায়েক আসবে আর তাদের বিরোধিতা করার জন্য আপনাদের মত অনেক মূর্খের ও জন্ম হবে এটাই সত্য ।

  11. জবাব চাচ্ছেন কেন ?
    উত্তর হল :- শ্রোতা যদি বক্তার কথা না বুঝে,তাহলে তো বক্তাকেই জানার জন্য প্রশ্ন করবে । আপনার কথার সাথে একমত বা দ্বিমত হওয়ার জন্য জবাব গুলোর প্রয়োজন।

    আপনি তো আমার জবাব নিবেন না । উত্তর হল :-সেটা আপনার ধারনা,তবে আপনি নিশ্চত হলেন কিভাবে?পূর্ব অভিজ্ঞতা থেকে??এ রকম তো নাও হতে পারে।আপনারাইতো বলেন THINK POSITIVE।
    আপনি জাকির নায়েকের অনেক বড় ভক্ত । আপনিতো পীর হয়ে গেছেন,আমি অনেক বড় ভক্ত !!
    আপনার লেকচারের শেষের দিকের অধিকাংশ কথাই যুক্তি নির্ভর এবং মুসলমানদের সেরকম হওয়া উচিত।
    আপনার লেকচারের শেষের দিকের অধিকাংশ কথাই যুক্তি নির্ভর এবং মুসলমানদের সেরকম হওয়া উচিত।তবে এ কথাটি কি সঠিক,নিজেকে প্রশ্ন করবেন ?? ধার্মিকরাই সবচেয়ে বেশী অধার্মিক ?? না কি ধর্মের নামে মুখোশধারী ধার্মিকরাই সবচেয়ে বেশী অধার্মিক ??

  12. আপনি ভালো একটা টপিক নিয়ে ছেন তারা তরি ভাইরাল হওয়ার জন্য

  13. ভাইয়া সবার পেটে সব কিছু হজম হবে না, এটাই স্বাভাবিক। আপনার পরবর্তী ভিডিও গুলোর অপেক্ষায় রইলাম। আল্লাহ আপনার মঙ্গল করুক।

  14. Islam Is The Best Religion; Muslims Are The Worst Followers
    ~ George Bernard Shaw.

    কবি আল্লামা ইকবাল বলেছেন "ইউরোপের আমি মুসলিম দেখিনি তবে ইসলাম দেখেছি। আর মুসলমানের দেশে আমি মুসলিম দেখেছি কিন্তু ইসলাম দেখিনি।"

    পুরো সেশনটি মনোযোগ দিয়ে দেখেছি এবং উপলব্ধি করেছি। আমি ব্যক্তিগতভাবে ড. জাকির নায়েককে বেশ পছন্দ করি। কথা বলতে গিয়ে অনেক সময় কথার ত্রুটি বিচ্যুতি হয়। এটার নানান কারণ থাকতে পারে, সেক্ষেত্রে ড. নায়েকের কিছু আছে। তবে তুলনামুলকভাবে উনি ইসলামের অনেক ভাল ভাল বক্তব্য দেন। কিন্তু আমার একটা বড় প্রত্যাশা যে, অন্য ধর্মের ত্রুটি বিচ্যুতি না ধরে উনি যদি ইসলামের আসল সৌন্দর্য নিয়ে বেশি বেশি কথা বলতেন। তাহলে আরও বেশি মানুষ ইসলামের প্রতি আকৃষ্ট হতেন এবং মুসুলমানের প্রতি মানুষের আস্থা দিন দিন আরও বাড়ত। যাই হোক আমি উনার নেক হায়াত কামনা করছি।

    আজকের এই আলোচনাটা শোনা প্রত্যেকটা মুসলমানের ঈমানী দায়িত্ব মনে করি। কেননা, ধর্মের নামে বিভিন্ন বিষয়কে বুঝানোর জন্য যে অপ্রাসঙ্গিক দিক গুলো টেনে নিয়ে আসা হয় এবং যা ধর্মের সৌন্দর্য ক্ষতি করে তা এতো সহজে যতগুলো বক্তব্য শুনেছি, এটা তার মধ্যে অন্যতম। আমি কোড করছি, "ধার্মিকরাই সবচেয়ে বেশী অধার্মিক।" আনকোড "না কি ধর্মের নামে মুখোশধারী ধার্মিকরাই সবচেয়ে বেশী অধার্মিক" এটা হলে হয়তো আরও ভালো হতো, তবে এটাকে আমি অনেকগুলো কথা বলার সময় স্লিপ অব টার্ন হিসেবে নিয়েছে।

    পুরো ভিডিওতে যে বিষয়গুলো আমার খুব ভালো লেগেছে এবং ভীষণভাবে উপভোগ করেছি, তা উল্লেখ করছি ঃ

    ১) ইসলামের আসল সৌন্দর্য,
    ২) মসজিদের আসল উদ্দেশ্য,
    ৩) কি কি বিষয়ে প্রশ্ন হতে পারে,
    ৪) সমালোচনার ধরণ, উপস্থাপনার সারল্য এবং
    ৫) বিভিন্ন দিক থেকে ব্যাখ্যায় আলোচনাকে করেছে দারুণ প্রাণবন্ত।

    সব মিলিয়ে আমি ভীষণ খুশি। অনেক অনেক শুভ কামনা রইল ভাইয়া।

  15. মাশাআল্লাহ আপনার প্রতিটি লাইন অনেক দামি কথা যা আমরা
    নিরপেক্ষ হয়ে শুনলে কথা গুলি বুঝতে পারবে না হয় বিতর্কের ঝড় তুলবে😀😀

  16. এক কথায় অসাধারন। ভাইয়া, আপনার কথাগুলো অনেকেই কান দিয়ে( অন্তর দিয়ে নয়) শুনবে এবং বক্তব্যের উল্টা পাল্টা অর্থ দাঁড় করিয়ে নিজের পরিচয় জানান দিবে।আমরা যারা অন্তর দিয়ে শুনার চেষ্টা করি এবং পরবর্তী লেকচারের অপেক্ষায় থাকি তাদের জন্য হলেও এই সেবা চালিয়ে যাবেন আশা করি।ধন্যবাদ ভাইয়া, অনেক ধন্যবাদ।

  17. আপনি,আপনার কথা ও আপনার ভিডিও প্রথম দেখলাম…বিস্ময়কর উপলব্ধি ও গবেষণা !!!!!
    humanity is the key point of every religion.

  18. Apnar Ei Vedio te Valo Jukti Achhe, Natun Kore Chinta Korte Shikhay. a Dharaner Video Bartomaner Jonnay Upajugi… (Plz Digital Marketing er Bangla Video Pele Jante Partam.)

  19. সজল ভাই খুব গুরুত্বপূর্ণ কথা গুলি বলেছেন, অনেক সুন্দর । কিন্তু আপনের কাছে একটা জিনিস জানতে চাই, সেটা হলো বাংলাদেশে প্রায় ১০ বছর দরে ( হেজমুত তৌফিক) নামে একটি দল এরা কি বলচে ইসলামের নামে।

  20. এত সুন্দর করে কেউ বুঝায় নি আগে। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ।
    আপনার প্রতি সম্মান এবং ভালোবাসা দুটোই বেরে চলেছে।

  21. মন্ত্র মুগ্ধ হয়ে পুরো ভিডিওটি দেখলাম।ভালবাসা অবিরাম।

  22. Just ignore them…..
    এইভাবে ignore করার জন্যই তো আজকে এই ভিডিও করার প্রয়োজন হচ্ছে।একটা বিষয় খেয়াল করলে দেখা যাবে ১৯৪৮ এর পরে ২০০০ সালের পূর্বে এই বিতর্ক তেমন একটা চোখে পরতো না,সবাই ভালোই ছিলো,প্রত্যেক ধর্মের মানুষ একসাথে ভালো ছিলো।কিন্তু কিছু উগ্রবাদী যারা এটাকে একটা ইস্যু বানিয়ে তাদের ফায়দা হাসিল করছে।যুগে যুগে বিভিন্ন সময়ে সবাই একটা ইস্যু তৈরি করতো যা দিয়ে তারা ব্যাবসা,রাজনীতির উন্নয়ন করতো।আর এখনকার ইস্যু হচ্ছে ধর্ম।তবে এই কৃত্তিম ইস্যু কি মুসলমান তৈরি করছে??
    আমরা হচ্ছি সেই হাতি,যে শুধুমাত্র ২০ ফুট চিনি।তবে যারা এটাকে ইস্যু বানিয়াছে প্রথমে তাদের থামাতে হবে।আজ যদি তাদের থামানো না যায় তাহলে ভবিষ্যৎ এর অস্ত্বিত্ত হুমকির মুখে পরবে।উদাহরণস্বরূপ লাষ্ট ভিডিও এর রেফারেন্স দেওয়া যেতে পারে-শাসক যেমন চাইবে ইতিহাস তেমন রচয়িত হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *